মসজিদে তারাবি হবে: তবে ইমাম-মুয়াজ্জিন-হাফেজসহ সর্বমোট ১২ জন থাকতে পারবে

আসন্ন রমজানে দেশের সব মসজিদে তারাবির নামাজের জামাত হবে। যাঁদের ইচ্ছে খতম তারাবি পড়বে যাঁদের ইচ্ছে সুরা তারাবি পড়বে। তবে তারাবির এ জামাতে ইমাম, মুয়াজ্জিন এবং হাফেজ সব মিলে ১২ জন মুসল্লি এতে অংশ নিতে পারবে।

আজ বৃহস্পতিবার (২৩ এপ্রিল) বিকালে ধর্ম প্রতিমন্ত্রী শেখ আবদুল্লাহ গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র তথ্য অফিসার মোহাম্মদ আনোয়ার হোসাইন প্রেরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, করোনা সংক্রমণ পরিস্থিতিতে ১০ জন মুসল্লি ও দুইজন হাফেজসহ মোট ১২ জনের অংশগ্রহণে রমজান মাসে মসজিদগুলোতে এশা ও তারাবির নামাজ আদায়ের সুযোগ থাকবে। একইসঙ্গে পূর্বে জারিকৃত মসজিদে জুমা ও জামাত বিষয়ক নির্দেশনাও কার্যকর থাকবে।

এছাড়া রমজান মাসে ইফতার মাহফিলের নানে কোন ধরনের অনুষ্ঠানের আয়োজন করা যাবেনা।

এ বিষয়ে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয় বিস্তারিত নির্দেশনাসহ শুক্রবার (২৪ এপ্রিল) একটি সার্কুলার জারি করবে বলেও জানান তিনি।

প্রসঙ্গত, করোনাভাইরাসের কারণে গত ৬ এপ্রিল ধর্ম মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে দেশের মসজিদগুলোতে মুসল্লীর সংখ্যা সীমিত করা হয়। মসজিদে ইমাম, মুয়াজ্জিন ও খাদেমদের সমন্বয়ে পাঁচ ওয়াক্তের জামাতে সর্বোচ্চ পাঁচজন করে এবং জুমার জামাতে ১০ জন করে অংশ নেয়ার অনুমতি দেয়া হয়।

Previous post রংপুরে ২৭৯০ কেজি চালসহ ইউপি সদস্য আটক
Next post করোনা: ইহুদিবাদী অবৈধ রাষ্ট্র ইসরাইলে মৃত্যুসংখ্যা বেড়ে ১৯১