বদরের চেতনায় উজ্জীবিত হয়ে খেলাফত প্রতিষ্ঠার জিহাদে ঝাঁপিয়ে পড়তে হবে: আল্লামা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী

বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের আমীরে শরীয়ত আল্লামা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী বলেছেন, বদর যুদ্ধ ইসলামের ইতিহাসের সোনালী অধ্যায় হয়ে সমুজ্জ্বল হয়ে আছে। তাওহীদে বিশ্বাসী মাত্র ৩ শত ১৩ জন জীর্ণ-শীর্ণ, নিরস্ত্র মুজাহিদদের সামনে অস্ত্রেশস্ত্রে সজ্জ্বিত কুফরী ও তাগুতী শক্তির ঔদ্ধত্যের চরম পরাজয়ের স্মৃতি হয়ে আছে এ যুদ্ধ। তাই বদর যুদ্ধের চেতনায় উজ্জীবিত হয়ে খেলাফত প্রতিষ্ঠার জিহাদে আমাদের ঝাঁপিয়ে পড়তে হবে।

সোমবার (১১ মে) বিকালে কামরাঙ্গীরচর জামিয়া নূরিয়ায় বদর দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভায় সভাপতির ভাষণে তিনি এসব কথা বলেন।

আল্লামা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী বলেন, বদর যুদ্ধ প্রমাণ করেছে অস্ত্রেশস্ত্রে নয় বরং আল্লাহর উপর পূর্ণ ঈমান ও আস্থা-বিশ্বাসের সামনে কোন শক্তিই টিকে থাকতে পারে না।

আল্লামা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী আরও বলেন, বদর যুদ্ধ দেড় হাজার বছর যাবত কাফের, মুশরিক, খোদাদ্রোহী, নাস্তিক-মুরতাদ ও অপশক্তির মোকাবেলায় ঈমানী শক্তিতে বলিয়ান হয়ে বিজয় ছিনিয়ে আনার প্রেরণা ও চেতনা যোগায়। বদরের চেতনায় উজ্জীবিত হয়ে ইসলামবিদ্ধেষী কুফরী ও তাগুতী শক্তির বিরুদ্ধে কুরআন-সুন্নাহর আলোকে খেলাফত প্রতিষ্ঠায় ঐক্যবদ্ধভাবে জিহাদ চালিয়ে যেতে হবে।

উক্ত সভায় উপস্থিত ছিলেন খেলাফত আন্দোলনের মহাসচিব মাওলানা হাবিবুল্লাহ মিয়াজী, নায়েবে আমীর মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী, সাংগঠনিক সম্পাদক মুফতি সুলতান মহিউদ্দিন, দপ্তর সম্পাদক মাওলানা সানাউল্লাহ, কেন্দ্রীয় নেতা মুফতি আ ফ ম আকরাম হুসাইন, মুফতি ফয়জুল্লাহ সা’দী, মুফতি সাইফুল্লাহ নোমানী ও মুফতি শাহাদাত হুসাইন প্রমুখ।